• রোববার   ২৫ জুলাই ২০২১ ||

  • শ্রাবণ ৯ ১৪২৮

  • || ১৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

সর্বশেষ:
গণসংগীতে ফকির আলমগীরের ভূমিকা স্মরণীয় হয়ে থাকবে- প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের জন্য হাড়িভাঙা আম উপহার পাঠালেন শেখ হাসিনা দেশে করোনা টিকা নেওয়ার বয়সসীমা ১৮ হবে- স্বাস্থ্যের ডিজি করোনার মধ্যেও বাংলাদেশের অর্থনীতি পুনরুদ্ধার হচ্ছে- এডিবি সীমিত পরিসরে ৫ আগস্ট পর্যন্ত চলবে উচ্চ আদালত

আপেল যতটা উপকারী, এর বীজ ততটাই বিষাক্ত

– দৈনিক ঠাকুরগাঁও নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২২ জুন ২০২১  

পুুষ্টিগুণ ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাসম্পন্ন একটি ফল হচ্ছে আপেল। কথায় আছে, প্রতিদিন একটি আপেল খেলে চিকিৎসককে দূরে রাখা যায়। তবে অ্যাপেল স্বাস্থ্যের পক্ষে যতটা উপকারী, এর বীজ ততটাই বিষাক্ত। চলুন এবার জেনে নেয়া যাক আপেলের বীজ কতটা বিষাক্ত-

আপেলের বীজে খুব অল্প পরিমাণে সায়ানাইড থাকে, যা মারাত্মক বিষ হিসেবে পরিচিত। কিন্তু বীজে শক্ত আবরণ থাকায় এই বিষ থেকে শরীর রক্ষা পায়। সুতরাং আপেলের বীজ গিলে ফেললে হজম না হওয়ার কারণে খুব একটা ভয়ের কারণ থাকে না। কিন্তু আপেলের বীজে কামড়ে বা চিবিয়ে খেলে বীজের ভেতরে থাকা রাসায়নিক ক্ষতির কারণ হতে পারে। তবে একটি আপেলের মধ্যে টক্সিনের ডোজ এত কম যে আপনার শরীর সহজেই তা ডিটক্সিফাই করতে পারে।

কী পরিমাণ আপেল বীজ প্রাণঘাতী হতে পারে?

প্রতি কিলোগ্রাম শরীরের ওজন অনুযায়ী প্রায় ১ মিলিগ্রাম সায়ানাইড মারাত্মক ক্রিয়া করে। আপেলের একটি বীজে গড়ে ০.৪৯ মিলিগ্রাম সায়ানোজেনিক যৌগ থাকে। প্রতিটি আপেলে একই পরিমাণ বীজ থাকে না, ৮টি বীজযুক্ত একটি আপেলে প্রায় ৩.৯২ মিলিগ্রাম সায়ানাইড থাকে। সেই হিসাবে ৭০ কেজি ওজনের কোনো ব্যক্তি কমপক্ষে ১৪৩টি বীজ চিবিয়ে খেলে, সেটা হবে তার জন্য নিশ্চিত মৃত্যুর কারণ। এ জন্য লাগবে প্রায় ১৮টি আপেল।

তবে শিশুরা একসঙ্গে চার-পাঁচটি আপেলের বীজ চিবিয়ে খেলে পরিণতি হতে পারে মারাত্মক। শিশুদের ওজন কম থাকায় সায়ানাইডের বিষে মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে। যে কারণে বীজ ফেলে তবেই শিশুদের আপেল খেতে দেওয়া উচিত।

– দৈনিক ঠাকুরগাঁও নিউজ ডেস্ক –