• শনিবার ২০ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৫ ১৪৩১

  • || ১২ মুহররম ১৪৪৬

সর্বশেষ:
সর্বোচ্চ আদালতের রায়ই আইন হিসেবে গণ্য হবে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী। ২৫ জুলাই পর্যন্ত এইচএসসির সব পরীক্ষা স্থগিত।

সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে লাঠির আঘাতে ৩ সন্তানের জনকের মৃত্যু

– দৈনিক ঠাকুরগাঁও নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৪ মার্চ ২০২৩  

কুড়িগ্রাম পৌরসভায় দুপক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে লাঠির আঘাতে শহিদুজ্জামান সেলিম (৪৫) নামে তিন সন্তানের জনকের মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৪ মার্চ) বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে নাজিরা ব্যাপারীপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত সেলিম ওই এলাকার মৃত বদরুজ্জামান বাদশা মিয়ার ছেলে।

এ ঘটনায় দুই নারীসহ তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। তারা হলেন- লিয়াকত আলী, কুদরত আলীর স্ত্রী নাজমা বেগম এবং কাওসার আলীর স্ত্রী মল্লিকা বেগম।

স্থানীয়রা জানান, লিয়াকত-কুদরতদের কাছ থেকে জমি কিনে তিনতলা ভবন নির্মাণ কাজ করছিলেন আহাদ আলী নামে এক ব্যক্তি। বাড়ির পানি ময়লা লিয়াকত-কুদরতদের বাড়িতে পড়ার অভিযোগ তুলে কাজ বন্ধ করতে যান লিয়াকত আলী, কুদরত আলী, কাওসার আলী, নয়ন, সয়নসহ কয়েকজন।

এ সময় আহাদ আলীর শ্যালককে কাজ বন্ধ রাখতে বললে বাগবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে সংঘর্ষ বাঁধলে সেলিম ঘটনাস্থলে গিয়ে থামানোর চেষ্টা করেন। বিষয়টি নিয়ে বসে সমাধানের কথা বলেন তিনি। এ সময় তাকে লাঠি ও রড দিয়ে পেটাতে আরম্ভ করেন লিয়াকতের লোকজন। পরে সেলিমকে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

পুলিশ সুপার আল আসাদ মো. মাহফুজুল ইসলাম বলেন, আমরা মূল ঘটনাটা এরইমধ্যে জানতে পেরেছি। তিনজনকে আটক করা হয়েছে। বাকিদের আটকের চেষ্টা চলছে।

– দৈনিক ঠাকুরগাঁও নিউজ ডেস্ক –